স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে রাজশাহীতে কৃষি বিপণন অধিদফতরের ভূমিকা শীর্ষক কর্মশালা

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীতে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে কৃষি বিপণন অধিদফতরের ভূমিকা শীর্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৯ মে) বেলা ১২টায় কৃষি বিপণন অধিদফতরের বিভাগীয় কার্যালয়ের প্রশিক্ষণ কক্ষে ‘স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে কৃষি বিপণন অধিদফতরের ভূমিকা’ শীর্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উক্ত কর্মশালায় রাজশাহী কৃষি বিপণন অধিদফতরের বিভাগীয় উপ-পরিচালক শাহানা আখতার জাহান এঁর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিভাগীয় কমিশনার ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিভাগীয় কমিশনার ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর বলেন, যথাযথ বিপণন ব্যবস্থা গড়ে তুলে প্রান্তিক পর্যায়ে কৃষকের কৃষিপণ্যের ন্যায্যমূল্য নিশ্চিত করতে কাজ করছে কৃষি বিপণন অধিদফতর। এছাড়াও চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের চ্যালেঞ্জের সাথে সামঞ্জ্যতা বজায় রাখতে কৃষি ব্যবসা উন্নয়নের মাধ্যমে জাতীয় অর্থনীতিতে অবদান রাখছে কৃষি বিপণন অধিদফতর।

আরও পড়ুনঃ   গোদাগাড়ীর সীমান্ত এলাকা থেকে হেরোইনসহ মাদক কারবারী গ্রেফতার

এক্ষেত্রে কৃষি বিপণন অধিদফতরের নিরলস পরিশ্রমের ফলেই ডিজিটাল বাংলাদেশ এখন দৃশ্যমান। ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত, আধুনিক ও স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে কৃষি বিপণন অধিদফতর অন্যতম মুখ্য ভূমিকা রাখবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে স্মার্ট কৃষির কোনও বিকল্প নেই উল্লেখ করে বিভাগীয় কমিশনার ড. দেওয়ান মুহাম্মদ হুমায়ূন কবীর বলেন, এসডিজির ১৭টি লক্ষ্যমাত্রার মধ্যে সাতটিই কৃষির সঙ্গে সরাসরিভাবে সম্পৃক্ত।

আরও পড়ুনঃ   স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে গণমাধ্যমের ভূমিকা

সেই লক্ষ্যে উৎপাদক, বিক্রেতা ও ভোক্তা সহায়ক কৃষি বিপণন ব্যবস্থা এবং কৃষি ব্যবসা উন্নয়নের জন্য কৃষি বিপণন অধিদফতর প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। তাই কৃষি খাতের সার্বিক উন্নয়নে কৃষি বিপণন অধিদফতরের পাশাপাশি সকলকে একযোগে কাজ করার আহ্বান জানান।

কর্মশালায় আরো উপস্থিত ছিলেন, কৃষি বিপণন অধিদফতরের বিভাগীয় সহকারী পরিচালক শাহনাজ পারভীনসহ কৃষি বিপণন অধিদফতরের রাজশাহী বিভাগের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ।