বিশ্বজুড়ে বিভিন্ন ভাষায় ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময় মুসলিমদের

অনলাইন ডেস্ক : শেষ হয়ে আসছে রমজান, দরজায় কড়া নাড়ছে ঈদুল ফিতর। আজ মঙ্গলবার রাত পোহালেই বুধবার ঈদ উদযাপন শুরু হবে মধ্যপ্রাচ্য, উত্তর আফ্রিকার বিভিন্ন দেশ, অস্ট্রেলিয়ায়সহ বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে।

অন্যদিকে চাঁদের আবর্তন গতি ও অবস্থানজনিত কারণে বাংলাদেশ, ভারতসহ অন্যান্য অনেক দেশে ঈদুল ফিতর উদযাপন হবে বুধবারের পরের দিন বৃহস্পতিবারে।

পৃথিবীতে বর্তমানে ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের মোট সংখ্যা ১৯০ কোটি, শতকরা হিসেবে যা বিশ্বের মোট জনসংখ্যার ২৫ শতাংশ। সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মুসলিম বসবাস করেন ইন্দোনেশিয়ায় (২৪ কোটি)। তারপর দ্বিতীয়, তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম স্থানে রয়েছে যথাক্রমে পাকিস্তান (২২ কোটি ৫০ লাখ), ভারত (২১ কোটি ১০ লাখ), বাংলাদেশ (১৫ কোটি ৫০ লাখ) এবং নাইজেরিয়া (১১ কোটি ১০ লাখ)।

আরও পড়ুনঃ   ইসরায়েলের সামরিক গোয়েন্দা প্রধানের পদত্যাগ

ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের দুই ঈদের মধ্যে প্রথমটির নাম ঈদুল ফিতর। আরবি চান্দ্র বর্ষপঞ্জির ৯ম মাস রমজানে ১ মাস উপবাস এবং ধর্মীয় আচার পালন শেষে এই ঈদের মধ্যে দিয়ে ফের স্বাভাবিক জীবনযাত্রায় প্রবেশ করেন মুসলিমরা। দশম মাস শাওয়ালের প্রথম চাঁদ উদয়ের পর থেকেই প্রকৃত অর্থে শুরু হয়ে যায় ঈদুল ফিতর উদযাপন।

আরও পড়ুনঃ   পশ্চিমবঙ্গে ১২ দিনের রিমান্ডে ‘কসাই’ জিহাদ

তবে ঈদের সময়ের তারতম্য ঘটলেও বিভিন্ন দেশ-ভাষা ও সংস্কৃতির মুসলিমদের পরস্পরের মধ্যে নিজ নিজ ভাষায় শুভেচ্ছা জানানোর ক্ষেত্রে কোনো বাধা বা তারতম্য ঘটছে না। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলোতে নানা দেশের ইসলাম ধর্মাবলম্বীরা মুসলিম উম্মাহর প্রতি ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

কাতার ভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা বিভিন্ন ভাষার এসব শুভেচ্ছাবার্তার পোস্ট সংক্ষিপ্ত ভিডিও আকারে প্রকাশ করেছে। বাংলা, আরবি, অসমিয়া, হিন্দি, উর্দু, ফারসি, ফরাসি, তুর্কিসহ মোট ১৩টি ভাষার শুভেচ্ছাবার্তার সংকলনে তৈরি হয়েছে ভিডিওটি।

প্রতিটি শুভেচ্ছাবার্তায় বলা হয়েছে ‘ঈদ মুবারক’ অথবা ‘ঈদ সাইদ’ (হ্যাপি ঈদ)।