সাত দিনের মধ্যে ৪৪ ঝুঁকিপূর্ণ ভবন ভাঙার নির্দেশ মাউশি’র

অনলাইন ডেস্ক : আগামী সাত দিনের মধ্যে রাজধানীর বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ৪৪টি ‘অতি ঝুঁকিপূর্ণ’ ভবন খালি করে সিলগালা করা অথবা ভেঙে ফেলার নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর (মাউশি)।

বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) মাউশির সহকারী পরিচালক (প্রকৌশল) মোহাম্মদ আব্দুল খালেক স্বাক্ষরিত এক অফিস আদেশে এ নির্দেশ দেওয়া হয়।

মাউশি’র নির্দেশনায বলা হয়, রাজউকের তালিকায় থাকা বিভিন্ন স্কুল-কলেজের ‘ঝুঁকিপূর্ণ’ ভবনগুলো মজবুত করতে হবে। আর ‘অধিক ঝুঁকিপূর্ণ’ ৪৪টি ভবন সাত দিনের মধ্যে খালি করে সিলগালা করে দিতে হবে অথবা ভেঙে ফেলতে হবে।

মাউশির অধীনে যেসব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ভবন ‘অধিক ঝুঁকিপূর্ণ’ সেগুলো হলো- বাড্ডা আলাতুন্নেছা উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল অ্যান্ড কলেজ, সাভারের ভাকুর্তা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, নারায়ণগঞ্জের দেলপাড়া সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, ঢাকা কলিজিয়েট স্কুল, দনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ, মিরপুর-১ নম্বরের সরকারি বাংলা কলেজ, নারায়ণগঞ্জের সরকারি কদম রসুল কলেজ, গাজীপুরের সরকারি কালিগঞ্জ শ্রমিক কলেজ, ডেমরার হায়দার আলি স্কুল অ্যান্ড কলেজ, মিরপুর-১৩ নম্বরের হাজী আলি হোসেন উচ্চ বিদ্যালয়, সূত্রাপুরের কবি নজরুল সরকারি কলেজ, গাজীপুরের কালিগঞ্জ আর আর এন পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয়,কেরানীগঞ্জ বালিকা স্কুল অ্যান্ড কলেজ, খিলগাঁও সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, ঢাকার সায়েদাবাদের করাতিটোলা সিএমএস উচ্চ বিদ্যালয়,নারায়ণগঞ্জ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, নারায়ণগঞ্জ সরকারি মহিলা কলেজ, যাত্রাবাড়ীর শহীদ জিয়া বালিকা স্কুল অ্যান্ড কলেজ, সাভারের ভাকুর্তার শ্যামলনগর স্কুল অ্যান্ড কলেজ, তেজগাঁও মডেল উচ্চ বিদ্যালয়, ঢাকা কলেজিয়েট স্কুল, দেল পাড়া সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়, সরকারি কালীগঞ্জ শ্রমিক স্কুল, হায়দার আলী স্কুল এন্ড কলেজ,কবি নজরুল স্কুল এন্ড কলেজ,এ কে এম রহমতুল্লাহ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ (২ টি), কে এম মাইনুদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়, আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় (মিঠাব), আলী আহমেদ স্কুল এন্ড কলেজ, আনন্দময়ী বালিকা বিদ্যালয়(২টি), আরামবাগ উচ্চ বিদ্যালয় , কদমতলীর একেকে উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড ব্রাইট কলেজ, কদমতলীর কে এম মাইনুদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয় আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় (মিঠাব), আজিমপুরের অগ্রণী স্কুল অ্যান্ড কলেজ, কোতোয়ালি থানার আহমেদ বাওয়ানী একাডেমি, গোড়ানের আলী আহমেদ স্কুল অ্যান্ড কলেজ, পল্টনের আরামবাগ উচ্চ বিদ্যালয় এবং লালবাগের আনন্দময়ী বালিকা বিদ্যালয়।

আরও পড়ুনঃ   দাবদাহের কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ৫ দিন বন্ধ ঘোষণা

মাউশি’র সূত্রে জানা যায়, যায়,’আরবান রেজিলিয়েন্স প্রকল্প: রাজউক অংশ’ শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় নিয়োজিত পরামর্শক প্রতিষ্ঠান ঢাকা মহানগর উন্নয়ন প্রকল্প ডিএমডিপি এলাকার সরকারি, আধা সরকারি, স্বায়ত্বশাসিত বিভিন্ন সংস্থার মালিকানাধীন ‘অধিক ঝুঁকিপূর্ণ’ ভবনগুলো ভেঙে ফেলার সুপারিশ করে।