বঙ্গবন্ধুর ভাষন ছাড়া পৃথিবীতে কোন রাজনৈতিক নেতার বক্তব্য এত মানুষ মুখস্ত করেনি: আসাদ

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি : বঙ্গবন্ধু ভাষন ছাড়া পৃথিবীতে আর কোন নেতার ভাষন এত মানুষ মুখস্ত করেনি বলে মন্তব্য করেছেন রাজশাহী-৩(পবা-মোহনপুর) আসনের সংসদ সদস্য মোহা. আসাদুজ্জামান আসাদ।

বৃহস্পতিবার রাজশাহীর পবা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষে স্বাধীনতার জিয়নকাঠি শীর্ষক আলোচনা সভা, পুরষ্কার বিতরণ এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আজকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষন হুবহু বলতে পারে, না দেখে। অর্থাৎ মুখস্ত করা ভাষন। এটি পৃথিবীতে আর কোন রাজনৈতিক নেতার ভাষন কেউ মুখস্ত করেছে বা আত্তস্থ করেছে বলে আমার জানা নেই। আমি মনে করি বঙ্গবন্ধু এক এবং অদ্বিতীয় মানুষ ছিলেন।

এমপি আসাদ বলেন, বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষনকে কেউ কবিতা হিসেব অখ্যায়িত করেছেন। অনেক সাহিত্যিক বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষনকে সাহিত্যের বড় কলাম হিসেবে তারা দেখাতে চেয়েছেন। পৃথিবীর বড় বড় রাজনীতিকরা রাজনৈতিক বিশ্লেষন হিসেবে দেখাতে চেয়েছেন। এই ধরণের ভাষন পৃথিবীতে আর কোন রাজনৈতিক নেতা দিতে পারে নি। আবার এই ভাষন নিয়ে পৃথিবীর বড় বড় বিশ^বিদ্যালগুলোতে গবেষনা হয়। ডিগ্রি দেওয়া হয়।

আরও পড়ুনঃ   শিবগঞ্জে কেন্দ্রে কেন্দ্রে পৌঁছেছে নির্বাচনী সরঞ্জাম

আসাদ বলেন, পৃথিবীতে দুই তিনটি ভাষন আছে তার মধ্যে বঙ্গবন্ধু একটি ভাষন যেটির দাড়ি, কমা, সেমিকলন, প্রতি অক্ষরের ব্যাখ্যা বিশ্লেষন করে জনগনের কাছে বিশেষত্ত প্রদান করে। এই ভষনটি খুনি জিয়ার সরকার তুচ্ছ তাচ্ছিল্ল করেছিলো। কিন্তু এই ভাষনটি আজ ইউনেস্ক স্বীকৃতি দিয়েছে।

এর আগে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষ্যে সকাল দশটার দিকে পবা উপজেলায় বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান মোহাঃ আসাদুজ্জামান আসাদ এমপি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন পবা উপজেলা নির্বাহী অফিসার আবু সালেহ্ মোহাম্মদ হাসনাত , উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোসাঃ আরজিয়া বেগম ও মোঃ ওয়াজেদ আলী খাঁন। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানগন, উপজেলা পরিষদএর কর্মকর্তা কর্মচারী ও আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুনঃ   বড়াইগ্রামে মোটরসাইকেল নিয়ে ঘুরতে গিয়ে প্রাণ হারালো স্কুল ছাত্র, আশঙ্কাজনক ২জন

পরে তিনি রাজশাহীর পবা উপজেলায় মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক পরিচালিত এবং সচেতন নাগরিক সোসাইটি কর্তৃক বাস্তবায়িত “জীবন বাঁচাতে সাঁতার প্রশিক্ষণ” কর্মসূচির আওতায় ২০২৩-২৪ অর্থবছরের ৩য় কোয়াটারে সাঁতার প্রশিক্ষণ কর্মসূচি পরিদর্শন করেন । এসময় তিনি লাইফ জ্যাকেট বিতরণ করে।
এদিকে মোহনপুর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ পালিত হয়েছে। বহস্পতিবার বিকেলে উপজেলা চত্তরে শহীদ মিনারে ফুলের শুভেচ্ছা জানান আসাদ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন মোহনপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজ উদ্দিন কবিরাজ, মোহনপুর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মেহবুব হাসান রাসেল, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মোসা: সানজিদা রহমান।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন মোহনপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আয়শা সিদ্দিকা।